করোনার থেকেও আতঙ্কের, ২০২১ সালের জন্য ভয়ঙ্কর ভবিষ্যতবাণী করেছেন নস্ট্রাদামুস!

0
115

নস্ট্রাদামুস পৃথিবীতে ঘটতে পারে এমন অনেক বিষয় নিয়ে ভবিষ্যৎ বাণী করেছিলেন যার মধ্যে রয়েছে দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধ, হিটলারের উত্থান, কমউনিজমের পতন, মার্কিন প্রেসিডেন্টের হত্যা, ইস্রায়েল রাষ্ট্রের গঠনের মতো আরও অনেক ঘটনা।

নিজস্ব প্রতিবেদন: ফরাসি জ্যোতিষী নস্ট্রাদামুস অবিশ্বাস্য সব ভবিষ্যৎ বাণীর জন্য এখনো বিশ্ববাসীর মনকে নাড়া দেয়। ১৫৫৫ সালে তিনি প্রায় ৯৪২টির মতো ভবিষ্যতাবাণী করেছিলেন যার মধ্যে বেশির ভাগ বাণী বা ঘটনা সত্যি হয়েছে বা ঘটেছে বলে দাবি করা হয়। নস্ট্রাদামুসের ভবিষ্যবাণীর ভাষা ও তার ইঙ্গিত এক দল যেমন সত্য মনে করে ঘটে যাওয়া সব ঘটনার সাথে মিলিয়ে থাকে,তেমনি আরেক দল ঐ সব ঘটনাকে নিছকই কাকতালীয় মনে করে তাই তার সব ভবিষ্যৎবাণী নিয়ে এখনও বিতর্ক রয়েছে।

সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় এই কথা ভাইরাল হয়েছিলো যে, নস্ট্রাদামুস অনেক আগেই ২০২০ সালে বিশ্বজুড়ে ঘটতে পারে এমন অনেক ঘটনার কথা ভবিষ্যৎ বাণী করে ছিলেন যার মধ্যে এক মাহামারীর ভবিষ্যতবাণীও করেছিলেন। কিন্তু ২০২১ সালের জন্য় তিনি যে ভবিষ্যতবাণী করেছিলেন তা ছিল আরও ভয়ঙ্কর। সোশ্যাল মিডিয়ার অনুসারে, নস্ট্রাদামুস বলেছিলেন ২০২১ সালে রাশিয়া তাদের এক জৈব বিজ্ঞানী দ্বারা এমন এক জৈবাস্ত্র তৈরি করবে যা দ্বারা গোটা বিশ্বের মানব জাতিকে ধ্বংস করে ফেলা যাবে।

নস্ট্রাদামুসের এই ভবিষ্যতবাণীকে বিজ্ঞানী মহল অনেক বিতর্কিত করেছে। এই মহলের একটি বিশাল অংশ এটা দাবি করে যে, পৃথিবী ধ্বংস হবার আগে বার বার প্রাকৃতিক বিপর্যয় ঘটবে যার ভিতরে দুর্ভিক্ষ, মহামারী, ভুমিকম্প ইত্যাদি উল্ল্যেখযোগ্য। বিজ্ঞানী মহলের একাংশ এটাও দাবি করে যে করোনা মহামারীর পর পৃথিবীকে বিশাল খাদ্য সংকটের সম্মুখীন হতে হবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

পৃথিবীর প্রায় অর্ধেকাংশ মানুষ সমুদ্র উপকূলবর্তী এলাকায় বসবাস করে। উষ্ণায়ণ বৃদ্ধির সাথে সাথে পৃথিবীর তাপমাত্রাও দিন প্রতিদিন বেড়েই চলেছে যার ফলে রোজ সমুদ্র উপকূলীয় জলস্তর বাড়ছে। যার ফলে কোন এক সময় অতিরিক্ত জলস্তর বাড়ার কারণে সমুদ্র উপকূলীয় অঞ্চল জলের নিচে তলিয়ে গেলে তাতে আশ্চর্য হবার কিছু নেই।

উল্লেখ্য, নস্ট্রাদামুস যে ভবিষ্যতবাণী করেছিলেন তার মধ্যে দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধ, হিটলারের উত্থান, কমউনিজমের পতন, মার্কিন প্রেসিডেন্টের হত্যা, ইস্রায়েল রাষ্ট্রের গঠন, করোনা মহামারীর মতো ঘটনা উল্লেখযোগ্য।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here